ঢাকা, বুধবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৮ , , ৬ সফর ১৪৪০

গোপালগঞ্জে নেটওয়ার্ক বিড়ম্বনায় চার গ্রামবাসী : সাধারন মানুষ চরম ভোগান্তির শিকার

নিজস্ব প্রতিনিধি, গোপালগঞ্জ : । সি এন এন বাংলাদেশ

আপডেট: অক্টোবর ১৩, ২০১৮ ১০:৪৯ সকাল

মোবাইল নেটওয়ার্ক বিড়ম্বনায় গোপালগঞ্জের চার গ্রামের কয়েক হাজার মানুষ চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন। বারবার বিষয়টি সংশ্লিষ্ট মোবাইল কোম্পানি কর্তৃপক্ষকে জানিয়েও কোন ফল হয়নি। ফলে মোবাইল কোম্পানিগুলোর নেটওয়ার্ক ব্যবহারে কাঙ্খিত সেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন ওই এলাকার হাজারো মোবাইল ফোন ব্যবহারকারী গ্রাহক। গ্রামগুলো হল গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার জালালাবাদ ইউনিয়নের মাঠলা, তেঁতুলিয়া, পাঁচুড়িয়া ও দুর্গাপুর।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গোপালগঞ্জের সদর উপজেলার মাঠলা, তেঁতুলিয়া, পাঁচুড়িয়া ও দুর্গাপুর গ্রামে আজও পর্যন্ত কোন মোবাইল অপারেটর কোম্পানির নেটওয়ার্ক সঠিক ভাবে পাওয়া যায়না। মাঝে-মধ্যে নেটওয়ার্ক পাওয়া গেলেও তাতে স্পষ্ট ভাবে কথা শোনা যায় না বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। এতে ওই এলাকার হাট-বাজার, ব্যবসা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে তথ্য প্রযুক্তি এবং অনলাইন ভিত্তিক দৈনন্দিন কাজ ব্যাহত হচ্ছে। তথ্য প্রযুক্তির যুগেও মোবাইল কোম্পানি গুলোর এমন সেবায় ক্ষুব্ধ স্থানীয়রা।
দুর্গাপুর বাজারের ক্যাবল ব্যবসায়ী শেখ শাহ আলী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ডিজিটাল যুগে আজও আমাদের বাজারে কোনো মোবাইল কোম্পানির নেটওয়ার্ক ঠিক মতো পাই না। এ বিষয় কোম্পানিগুলোর অফিস এবং হেল্পলাইনে একাধিকবার জানিয়েও কোনো প্রতিকার পাইনি।
মাঠলা গ্রামের মোবাইল ব্যবসায়ী মিরু মুন্সী বলেন, আমাদের এলাকায় সব কোম্পানির নেটওয়ার্ক অত্যন্ত দুর্বল। মোবাইলে জরুরি কথা বলার সময় কলড্রপ, ইমাজেন্সি নেটওয়ার্কসহ বিভিন্ন সমস্যা দেখা দেয়। আধুনিক প্রযুক্তির যুগে নেটওয়ার্কের এ অবস্থা মেনে নেয়া যায় না। তাই দ্রুত সমস্যার সমাধান করতে যথাযথ কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।
পংগু বাজারের মামুন টেলিকমের স্বত্বাধিকারী মো: মামুন মুন্সী বলেন, সিম তুলতে এবং সিম রেজিস্ট্রেশন করতে গিয়ে নেটওয়ার্কের সমস্যার কারণে অনেক সময় আমরা গ্রাহকদের সেবা দিতে পারি না।
কলেজ ছাত্র রবিউল ইসলাম বলেন, মোবাইল নেটওয়ার্কের সমস্যার কারণে আমরা শিক্ষার্থীরা ডিজিটাল যুগেও পরীক্ষার ফলাফল, ভর্তি ও চাকরির আবেদন, মোবাইল ব্যাংকিংসহ অনলাইন সেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছি। তাই দ্রুত সমস্যার সমাধান করতে কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।
এ ব্যাপারে গোপালগঞ্জ বিটিসিএলের সহকারী ব্যবস্থাপক মো: ওবায়দুর রহমান বলেন, যদি এমন হয় আগে নেটওয়ার্ক পাওয়া যেত, এখন নেটওয়ার্ক পাওয়া যাচ্ছে না। তাহলে হয়তো টাওয়ারের ব্যাজ পরিবর্তন করতে হবে। ব্যাজের নির্দিষ্ট মেয়াদ থাকে। মেয়াদ উত্তীর্ণের কারণে এমনটা হতে পারে।