ঢাকা, বুধবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৮ , , ৬ সফর ১৪৪০

ছাতকে পল্লী বিদ্যুতের ৫০লক্ষ টাকা নিয়ে কর্মচারী পলাতক

নিজস্ব সংবাদদাতা ছাতক । সি এন এন বাংলাদেশ

আপডেট: আগস্ট ১৬, ২০১৮ ৩:০৯ দুপুর

ছাতকের গোবিন্দগঞ্জে সুনামগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জোনাল অফিস থেকে নতুন মিটার সংযোগের নামে তিনটি গ্রামের ৬শতাধিক গ্রাহকের প্রায় ৫০লাখ টাকা ও বিলিং ম্যানেজারের টেবিল থেকে সরকারি গুরুত্বপূর্ণ ফাইল সহ এনামুল হক নামের এক ওয়ারিং পরিদর্শক উধাও হয়েছে। এ নিয়ে এলাকা জুড়ে ব্যাপক তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে। সংশ্লিষ্ট একটি সুত্র থেকে জানা যায়, দীর্ঘদিন থেকে সুনামগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির গোবিন্দগঞ্জ জোনাল অফিসের ওয়ারিং
পরির্দশক এনামুল হক প্রায় ছয় শতাধিক গ্রাহককে বৈদ্যুতিক মিটার সংযোগ দেয়ার নামে বিদ্যুৎ সমিতিরি জাল রশিদের মাধ্যমে টাকা আদায় করে আসছে। গত সোমবার দোয়ারা বাজারে এক গ্রাহকের কাছ থেকে মিটারের টাকা আদায় করতে গিয়ে আটক হয় এনামুল হক। সেখান থেকে বিভিন্ন কৌশলে ছাড়া পেয়ে অফিসে এসে বিলিং ম্যানেজার জুবেদা খানমের টেবিল থেকে মিটার সংক্রান্ত শতাধিক গুরুত্বপূর্ণ ফাইল নিয়ে সে নিখোঁজ হয় । নিখোঁজের পর থেকেই বিলিং ম্যানেজার জুবেদা খানম ছুটি নিয়ে গ্রামের বাড়িতে চলে গেছেন বলে জানা গেছে। এদিকে ঘটনার সত্যতা প্রাথমিক ভাবে প্রমাণিত হওয়ায় গত মঙ্গলবার এনামুল হককে চাকুরী থেকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করেছে পল্লী বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ। এ ঘটনার তদন্তে সুনামগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির এজিএম (ফাইন্যান্স) সারোয়ার জাহানকে প্রধান করে তিন সদস্যদের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে বলে জানান, সুনামগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ
সমিতির জিএম অখিল কুমার সাহা। টাকা ও ফাইল নিয়ে এনামুল হক উধাও হওয়ার ঘটনায় ছাতক থানায় বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষ একটি জিডি করেছে বলে জানিয়েছেন, সুনামগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির পরিচালক পীর মোহাম্মদ আলী মিলন।