ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮ , , ২ রবিউস সানি ১৪৪০

নানা কারণে আলোচিত, সেই ওসিকে বদলি

কুষ্টিয়ার । সি এন এন বাংলাদেশ

আপডেট: অক্টোবর ৯, ২০১৮ ১১:৪৯ সকাল

নানা কারণে আলোচিত কুষ্টিয়ার খোকসা থানা পুলিশের সেই বিতর্কিত ওসি বজলুর রহমানকে বদলি করা হয়েছে। তার জায়গায় এবিএম মেহেদী মাসুদ দায়িত্বভার গ্রহণ করেছেন। ওসি বজলুর রহমানকে কুষ্টিয়ায় কোর্ট ইনেসপেক্টর পদে বদলি করা হয়েছে। নানা কারণে আলোচিত ছিলেন এই কর্মকর্তা।

সম্প্রতি খোকসা সরকারি ডিগ্রি কলেজের প্রথম বর্ষের বিজ্ঞান বিভাগের মেধাবী ছাত্রী সুমাইয়া তরনীর আত্মহত্যা পরবর্তী সুইসাইড নোট উদ্ধারের পর শাহীন নামের এক ধর্ষকের বিরুদ্ধে মামলা গ্রহণ না করার কারণে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন ওসি বজলুর রহমান। এ ঘটনায় বিক্ষুদ্ধ কলেজ শিক্ষার্থীরা কুষ্টিয়া-রাজবাড়ি মহাসড়ক অবরোধ করে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ প্রদর্শন করে ওসিকে মামলা গ্রহণের জন্য ৪৮ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দেয়। শেষ পর্যন্ত বাধ্য হয়ে ওসি বজলুর রহমান ধর্ষক শাহীনের বিরুদ্ধে কলেজছাত্রী সুমাইয়া তরনীর আত্মহত্যার ঘটনায় আত্মহত্যার প্ররোচণা মামলা গ্রহণ করেন।

ধর্ষক শাহীনের বিরুদ্ধে মামলা না নেয়া এবং পরবর্তীতে বাধ্য হয়ে আত্মহত্যা প্ররোচনা মামলা গ্রহণের ঘটনায় ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন ওসি বজলুর রহমান। এ অবস্থায় সোমবার রাতে হঠাৎ করেই পুলিশ সুপারের দপ্তর থেকে জন নিরাপত্তার স্বার্থে নিয়মিত বদলির অংশ হিসেবে বজলুর রহমানকে বদলি করা হয়। একই আদেশে গোসাইর হাট থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এবিএম মেহেদী মাসুদকে খোকসা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা পদে বদলির আদেশ দেয়া হয়।

সোমবার রাতেই এবিএম মেহেদী মাসুদ বদলিকৃত কর্মকর্তা ওসি বজলুর রহমানের কাছ থেকে দায়িত্ব ভার বুঝে নিয়েছেন। জানা যায়, চলতি বছরের ৯ মার্চ বজলুর রহমান খোকসা থানায় যোগদান করেন।

তবে এ ব্যাপারে কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এসএম তানভীর আরাফাত  জানান, এটি পুলিশের নিয়মিত বদলির অংশ।