ঢাকা, শনিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৮ , , ৯ সফর ১৪৪০

নিরাপত্তার অজুহাতে পরিবহন শ্রমিকদের অঘোষিত ধর্মঘট

নিউজ ডেস্ক,ঢাকা । সি এন এন বাংলাদেশ

আপডেট: আগস্ট ৫, ২০১৮ ৭:২২ সকাল

নিরাপত্তার অজুহাতে পরিবহন মালিক-শ্রমিকদের অঘোষিত ধর্মঘট চলছেই। ধর্মঘটের কারণে রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশে সাধারণ যাত্রীদের ভোগান্তি চরমে উঠেছে। বাস না পেয়ে নগরবাসীকে গন্তব্যে যেতে রিকশা, অটোরিকশায় দ্বিগুণ-তিনগুণ ভাড়া গুনতে হচ্ছে। চাহিদার তুলনায় কম হওয়ায় এসব পরিবহনও সহজে পাওয়া যাচ্ছে না। এছাড়া আজ থেকে শুরু হওয়া ট্রাফিক সপ্তাহের কারণেও কাগজপত্র না থাকায় রাস্তায় থাকা যানবাহন আটকে রাখা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত ২৯ জুলাই ঢাকার বিমানবন্দর সড়কে বাসচাপায় দুই কলেজ শিক্ষার্থীর মৃত্যুর পর নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনে নামে শিক্ষার্থীরা। এরপর বৃহস্পতিবার অঘোষিত ধর্মঘট শুরু করেন পরিবহন মালিক-শ্রমিকরা। এর আগের রাতে দূরপাল্লার যানবাহন চললেও শনিবার রাত থেকে তাও বন্ধ করে দেয়া হয়।

পরিবহন মালিকরা বলছেন, গাড়ি ভাঙচুরের কারণে নিরাপত্তা না থাকায় চালকরা বাস চালাতে চাচ্ছেন না।

রোববার সরকারি অফিস-আদালত খোলা থাকায় সকাল থেকে হাজার হাজার মানুষ রাস্তায় থাকলেও গণপরিবহন ছিল না। স্বল্পসংখ্যক বিআরটিসি বাস থাকলেও তাতে ওঠার কোনো উপায় ছিল না। বাধ্য হয়ে যাত্রীরা প্রাইভেটকার, বাইকে চেপে গন্তব্যে রওনা হন।

সকালে রাজধানীর, উত্তরা, বাড্ডা, যাত্রাবাড়ী, মিরপুর-১০ মগবাজারসহ বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখে গেছে, এখন বাহন বলতে শুধু রিকশা, সিএনজিচালিত অটোরিকশা, ভ্যানগাড়ি। তাও প্রয়োজনের তুলনায় খুবই কম। ভাড়া নেয়া হচ্ছে চার/পাঁচগুণ বেশি। অনেকে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে ট্রাক, পিকআপ ভ্যানে করে যাচ্ছেন গন্তব্যে। তবে সকাল সাড়ে ১০টা পর্যন্ত আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের রাস্তায় দেখা যায়নি।

নারী, শিশু ও বৃদ্ধদের দুর্ভোগ অবর্ণনীয়
রোববার সকাল ৮টার দিকে যাত্রাবাড়ীর রায়েরবাগ, শনির আখড়া বাসস্ট্যান্ডে দেখা গেছে, হাজারও মানুষের ভিড়। শনির আখড়া থেকে যাত্রাবাড়ী মোড়ে ২০ টাকার ভাড়া নেয়া হচ্ছে ৬০ থেকে ৮০ টাকা। ভ্যানগাড়িতে জনপ্রতি ভাড়া ২০ টাকা। কিন্তু এ পথের বাস ভাড়া মাত্র ৫ টাকা।

রায়েরবাগ বাসস্ট্যান্ড থেকে সিএনজি অটোরিকশরায় জনপ্রতি ভাড়া নেয়া হচ্ছে ১৫০ টাকা। এই পথে বাসের ভাড়া ১৫ টাকা। কোনো উপায় না পেয়ে অনেকে হেঁটেই রওনা হন গন্তব্যে। অনেক মানুষকে মেয়র হানিফ ফ্লাইওভার দিয়ে হেঁটে গুলিস্তানের দিকে যেতে দেখা গেছে।

অপরদিকে যাত্রাবাড়ী চৌরাস্তায়ও হাজারও মানুষকে গাড়ির জন্য অপেক্ষা করতে দেখা গেছে। যাত্রাবাড়ী থেকে গুলিস্তান যেতে রিকশা ভাড়া নেয়া হচ্ছে ১০০ থেকে ১৫০ টাকা। অন্যসময় এই ভাড়া ৪০ থেকে ৫০ টাকা। এখন থেকে ভ্যানগাড়িতে গুলিস্তান যেতে ভাড়া নেয়া হচ্ছে ৫০ টাকা। এ পথের বাস ভাড়া ৫ থেকে ১০ টাকা।