ঢাকা, সোমবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৭ , , ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

মা কোলেই ঘুমিয়ে আছে শিশু, কিন্তু এই ঘুম আর ভাঙবে না

উখিয়ার কুতুপালংথেকে । সি এন এন বাংলাদেশ

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১৮, ২০১৭ ৩:৪৩ দুপুর

কোলেই ঘুমিয়ে আছে শিশু, কিন্তু এই ঘুম আর ভাঙবে না। এক পর্যায়ে বিষয়টি জানলেও কোনো মতেই মানতে নারাজ অসহায় মা। জীবন বাঁচাতে মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে এসে সুখের হাসি হাসলেও মুহূর্তেই তা হাওয়ায় মিলিয়ে যায়। অবুঝ শিশুর নিথর দেহ বুকে জড়িয়ে আহাজারি করছেন হানিদা।

সবাইকে বলছেন, তার কলিজার টুকরা এখনই জেগে উঠবে। কিন্তু মুখের কথা মুখেই শেষ হয়ে যায়। নদী পার হয়ে বাংলাদেশে আসার পথে নিঃশ্বাস ফুরিয়ে গেছে একমাস বয়সী মাসুদের।

বার্তা সংস্থা এপি’র চিত্র সাংবাদিক তার ক্যামেরার ফ্রেমে বন্দি করেছেন শিশু মাসুদের মরদেহ এবং তার মায়ের আর্তনাদ। চরম দুঃখের দিনে কান্না থামাতে পারছিলেন না বাকিরাও। মৃত সন্তানকে ধরে রোহিঙ্গা নারী হানিদার আকুতি দেখে।

জাতিগত নিধনযজ্ঞ থেকে বাঁচতে শিশুদের নিয়ে স্বামীর সঙ্গে বাংলাদেশে পালিয়ে আসেন হানিদা। ছোট নৌকায় বহু মানুষ পারাপারের সময়ে হানিদাদের নৌকিা ডুবে গিয়েছিল। পরে অন্য নৌকায় সবাই উঠলেও কোলে থাকা এক মাস বয়সী মাসুদ ঠান্ডা পানির কারণে মারা যায়। তখন বুঝতে না পারলেও পারে এসে বুঝতে সময় নেয় না মা হানিদা।

কোলের মধ্যেই কখন চিরতরে ঘুমিয়ে গিয়েছে তার অবুঝ দুধের শিশু তা হানিদাও টের পাননি। সন্তানের এভাবে মৃত্যু মেনে নিতে না পেরে হানিদা। তার সন্তানকে জীবিত হিসেবেই কোলে করে নিয়ে আছেন।

থেমে থেমে কাঁদছেন, আদর করছেন। তার কান্নায় রোহিঙ্গা আশ্রয় শিবিরের আকাশ আরও ভারী হয়ে উঠছে।